হোম আন্তর্জাতিক নিপাহ ভাইরাস: ‘বাংলাদেশি ভ্যারিয়েন্টে’ প্রতি ১০ জনে ৯ জনের মৃত্যু হতে পারে

নিপাহ ভাইরাস: ‘বাংলাদেশি ভ্যারিয়েন্টে’ প্রতি ১০ জনে ৯ জনের মৃত্যু হতে পারে

কর্তৃক Editor
০ মন্তব্য 130 ভিউজ

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

নিপাহ ভাইরাস নিয়ে ভয়াবহ সতর্কতা দিয়েছেন ভারতের শীর্ষ মহামারি বিশেষজ্ঞরা। তারা বলছেন, এই ভাইরাসে ‘বাংলাদেশি ভ্যারিয়েন্ট’ আক্রান্ত ১০ জনে ৯ জন মারা যেতে পারেন।

ভারতের শীর্ষ মহামারি বিশেষজ্ঞ ড. রমন গঙ্গাখেদকর বলেন, করোনাভাইরাসের চেয়ে এই ভাইরাস (নিপাহ) অধিক হারে প্রাণঘাতী।

তিনি বলেন, এই ভাইরাসের বাংলাদেশি ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত ১০ জন মানুষের মধ্যে ৯ জন মারা যেতে পারেন। ভাইরাসের বিস্তার রোধে এর উৎস খুঁজে বের করার ওপর গুরুত্ব দিয়েছেন তিনি।

ভারতের অনলাইন নিউজ১৮ কে ডা. রমন বলেন, নিপাহ ভাইরাসের উৎস খুঁজে বের করায় অগ্রাধিকার দিতে হবে, চারপাশের সব প্রাণির পরীক্ষা করায়, লোকজনের চলাফেরায় এবং চিকিৎসা ব্যবস্থা প্রস্তুত রাখায়।

২০১৮ সাল থেকে ভারতের কেরালা রাজ্যে চতুর্থ দফায় এই ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দিয়েছে। রাজ্য এখন এর বিরুদ্ধে লড়াই করছে। বন্ধ করে দেয়া হয়েছে এ রাজ্যের সব স্কুল, কলেজ। সোমবার (১৮ সেপ্টেম্বর) থেকে সেখানে অনলাইনে ক্লাস করানোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

কেরালার স্বাস্থ্যমন্ত্রী বীণা জর্জ দাবি করেছেন, নিপাহ ভাইরাসের যে স্ট্রেইন বা ভ্যারিয়েন্ট কেরালায় ছড়িয়েছে তা ‘বাংলাদেশি ভ্যারিয়েন্ট’। তিনি জানান, এই ভ্যারিয়েন্ট কম সংক্রামক, তবে মারণ ক্ষমতা বেশি। আর তা মানুষ থেকে মানুষে ছড়িয়ে যাচ্ছে।

নিপাহ ভাইরাসে চলতি মাসের শুরুতে কেরালার কোঝিকোড় জেলায় একজনের মৃত্যু হয়। একই জেলায় অন্যজনের মৃত্যু হয় ৩০ আগস্ট। প্রাণ হারানো দুই স্বজনের দেহেও নিপাহ ভাইরাসের অস্তিত্ব পাওয়া গেছে। তাদের হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

নিপাহ ভাইরাসে আক্রান্তদের জন্য কোনো ওষুধ বা টিকা না থাকায় রোগীদের মৃত্যুর হার অনেক বেশি। ভারতের স্বাস্থ্যমন্ত্রী মানসুখ মান্ডবিয়া মঙ্গলবার (১২ সেপ্টেম্বর) জানান, কেন্দ্রীয় সরকার কেরালা রাজ্যের পরিস্থিতি যাচাইয়ের জন্য একটি বিশেষজ্ঞ দল পাঠিয়েছে।

সম্পর্কিত পোস্ট

মতামত দিন